Visa Gold & Master Gold ক্রেডিট কার্ডে কি কি সুবিধা পেতে যাচ্ছেন বিস্তারিত জানুন

একটি ক্রেডিট কার্ড হল একটি ডিজিটাল পেমেন্ট কার্ড। বর্তমান সময়ে বহুল পরিচিত এবং নির্ভরযোগ্য একটি মাধ্যম। অনেক রকম কার্ড প্রচলিত আছে তার মধ্যে Visa Gold & Master Gold অন্যতম। অনেকে এই সম্পর্কে জানতে চাই তাই আজকে আমরা কার্ডের সম্পর্কে জানবো। আজকের পোস্টের মূল বিষয় হচ্ছে, Visa Gold & Master Gold ক্রেডিট কার্ডে কি কি সুবিধা পেতে যাচ্ছেন সে সম্পর্কিত আলোচনা।কার্ড ব্যবহারের অনেক সুযোগ সুবিধা রয়েছে। কার্ড অত্যন্ত নিরাপদ একটি পেমেন্ট ব্যবস্থা। আজকের পোস্টে আমরা আপনাদের বিভিন্ন কার্ড এবং কোনটি ভালো কোনটি খারাপ সে সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করে জানাব।

ভূমিকা

Visa Gold & Master Gold ক্রেডিট কার্ড Datch Bangla Bank কর্তৃক নিয়ন্ত্রিত একটি পেমেন্ট ব্যবস্থা। বর্তমানে সব ধরণের বড় বড় শপিংমলে এবং প্রায় সব জায়গায় কার্ডে পেমেন্ট ব্যবস্থা রয়েছে। কার্ড ব্যবহার করার অনেক সুযোগ সুবিধার জন্য সবাই কার্ড ব্যবহার করে। ক্রেডিট কার্ড আপনাকে নগদ টাকা তোলাসহ বিভিন্ন কিছু সুযোগ সুবিধা পাওয়া যায়।

ক্রেডিট কার্ড কত প্রকার ?

ক্রেডিট কার্ড মূলতো মানুষ কেনাকাটার জন্য বেশি ব্যবহার করে থাকে। ক্রেডিট কার্ড একটি ডিজিটাল লেনদেন ব্যবস্থা। ক্রেডিট কার্ড মূলত তিন চ্যানেলের হয়ে থাকে। আজকে আমরা জানবো Visa Gold & Master Gold ক্রেডিট কার্ডে কি কি সুবিধা পেতে যাচ্ছেন । যেমনঃ
  • মাস্টার কার্ড
  • ভিসা
  • অ্যামেক্স
উপরোক্ত তিনটি চ্যানেল ব্যাতিত আরো ক্রেডিট কার্ড রয়েছে যেমন জেসিবি, ডিসকভারি ইত্যাদি। উপরিউক্ত চ্যানেলের উপর ভিত্তি করে বিভিন্ন রকম ডিসকাউন্ট দেওয়া হয়। বিভিন্ন কোম্পানি ব্যাংক অথবা প্রতিষ্ঠানের নামের উপর ভিত্তি করে ক্রেডিট কার্ডের নাম দেওয়া হয় যেমন প্লাটিনাম, গোল্ড, ভিসা, সিগনেচার, ক্লাসিক ইত্যাদি।

ক্রেডিট কার্ডের কাজ কি ?

ক্রেডিট কার্ডের বহুমুখী কাজ রয়েছে। ক্রেডিট কার্ড সাধারণ ডিজিটাল পরিশোধ ব্যবস্থার অংশ হিসেবে কাজ করে। ক্রেডিট কার্ড একটি প্লাস্টিক কাড ওই ব্যবহারকারীর পরিশোধ ব্যবস্থার জন্য প্রদান করা হয়। একটি ক্রেডিট কার্ডের বাহক বিভিন্ন পণ্য কেনাবেচা করতে পারে এবং উক্ত কার্ড দ্বারা মূল্য পরিশোধ করতে পারে। স্থানীয় বিভিন্ন ব্যাংকগুলো বক্তাদের কাছে এই কার্ডগুলো ইস্যু করে থাকে। বিভিন্ন ক্রেডিট কার্ড বিভিন্ন কাজে ব্যবহার করা হয়। 

যেমন ব্যবসায়িক ক্রেডিট কার্ড ব্যবসায়িক লেনদেন করে, ট্রাভেলরদের জন্য আলাদা ক্রেডিট কার্ড রয়েছে। সুতরাং বোঝাই যাচ্ছে ভিন্ন ভিন্ন কাজের জন্য ভিন্ন ভিন্ন ক্রেডিট কার্ড রয়েছে। ক্রেডিট কার্ডের কাজ বহুমুখী। আজকের পোস্টে আমরা জানবো Visa Gold & Master Gold ক্রেডিট কার্ডে কি কি সুবিধা পেতে যাচ্ছেন তার বিস্তারিত।

Visa Gold ও Master gold এর পার্থক্য

ভিসা কার্ড হচ্ছে ভিসা নেটওয়ার্ক দ্বারা পরিচালিত পেমেন্ট কার্ড। ভিসা কার্ড বর্তমানে ক্রেডিট কার্ড বাদেও ডেবিট ও গিফট কার্ড সার্ভিস প্রদান করে থাকে। অন্যদিকে মাস্টার কার্ড হচ্ছে ব্যান্ডেড পেমেন্ট কার্ডগুলোর প্রতিষ্ঠানের সাথে একজোট হয়ে কাজ করে। ডেভিড ক্রেডিট ও প্রিপেইড কার্ডগুলো গুলো মাস্টার কার্ড ইস্যু করে থাকে। দুটি কার্ডের এর ব্যবহার প্রায় একই। প্রতিটা ক্ষেত্রেই দুটি কাঠি ব্যবহার করা হয়ে থাকে আবার অনলাইন নিরাপত্তার ক্ষেত্রেও দুটি কার্ডই আলাদা আলাদা প্রটেকশন দিয়ে থাকে। ভিসা কার্ড ও মাস্টার কার্ড সাধারণত তিন লেভেলের সুবিধা দিয়ে থাকে যেমনঃ

  • বেসিক
  • মিড রেঞ্জ
  • প্রিমিয়াম
বিভিন্ন রেঞ্জের চার্জ এবং সুবিধা ভিন্ন ভিন্ন। উপরিক্ত তথ্য থেকে আমরা জানলাম যে ভিসা কার্ড ও মাস্টার কার্ডের মধ্যে তেমন কোনই পার্থক্য নেই আপনি চাইলে যেকোনো একটি ব্যবহার করতে পারেন। আজকের পোস্টে আমাদের জানার বিষয় হচ্ছে Visa Gold & Master Gold ক্রেডিট কার্ডে কি কি সুবিধা পেতে যাচ্ছেন বিস্তারিত তথ্য।

কোন কার্ড ভালো ভিসা নাকি মাস্টার ?

প্রিয় পাঠক, আমরা ইতিমধ্যেই ক্রেডিট কার্ড কত প্রকার,ভিসা কার্ড ও গোল্ড কার্ডের মধ্যে পার্থক্য সম্পর্কে জেনেছি। এখন অনেকেই মনে করতে পারে, এই দুইটি কার্ডের মধ্যে কোন কার্ড ভালো ভিসা নাকি মাস্টার। উপরোক্তে আলোচনা থেকে এটাই স্পষ্ট যে ভিসা এবং মাস্টার কার্ডের বিশেষ কোন পার্থক্য নেই তাই আপনি চাইলে দুটি কার্ডের মধ্যে যেকোনো একটি কার্ড ব্যবহার করতে পারেন।ভিসা কার্ড এবং মাস্টার কার্ড দুটি ভাল সার্ভিস প্রদান করে থাকে। আজ আমরা জানবো Visa Gold & Master Gold ক্রেডিট কার্ডে কি কি সুবিধা পেতে যাচ্ছেন সে সম্পর্কে বিস্তারিত।

ভিসা গোল্ড কার্ড পেতে কতদিন সময় লাগে ?

প্রিয় পাঠক, আমরা এরই মধ্যে ভিসা কার্ড সম্পর্কে জেনে গেছি। ভিসা কার্ডের ব্যবহার এবং সুবিধার সম্পর্কে জেনেছি। এখন অনেকেই প্রশ্ন করে ভিসা গোল্ড কার্ড পেতে কতদিন সময় লাগতে পারে। একটি ভিসা গোল্ড কার্ড পেতে ৭ কর্ম দিবস থেকে ১ মাস পর্যন্ত সময় লাগতে পারে।

Visa Gold & Master Gold ক্রেডিট কার্ডে কি কি সুবিধা পেতে যাচ্ছেন

  • ১ম বছরে কার্ডের চার্জ ১০০% ফ্রি।
  • কার্ড ইস্যু হতে কোন প্রকার চার্জ নেই।
  • কোন হিডেন চার্জ নেই।
  • কোন প্রকার ইন্সুরেন্স ফিচার নেই। চার্জ হবার কোন চান্স নেই।
  • লেট পেমেন্ট আলাদা কোন চার্জ নেই, তবে ৫০ দিনের পর থেকে যতদিন টাকা জমা না দেবে ইন্টারেস্ট বাড়তে থাকবে।
  • ট্রানজেকশন এসএমএসের জন্য কোন চার্জ নেই, সারা বছরের জন্য ফ্রি।
  • এটিএম চার্জ ফ্রি।
  • আশেপাশের প্রতিটি বাজারে এটিএম বুথ পেয়ে যাবেন।
  • নগদ টাকা তুলতে কোন ভোগান্তি নেই।
  • ডুয়েল কারেন্সি কার্ড, সারাবিশ্বে ব্যবহারের সুবিধা থাকবে।
  • বিকাশ রকেট নগদে এড মানে সেন্ড করা সহজ।
  • মোবাইলে নেক্সাস পে অ্যাপ দিয়ে যেকোনো সময়ে ফান্ড ট্রান্সফার করে ক্যাশ করা যাবে টোটাল লিমিটের ৯০%।
  • ক্রেডিট কার্ড থেকে ডেবিট কার্ড অথবা রকেট ফান্ড ট্র্যান্সফার করা যায় এবং যার প্রচেসিং ফী কাটা হয় টোটাল টাকার ১%। সাথে পেয়ে যাবেন ৫০ দিনের ভিতর টাকা জমা দেয়ার ব্যবস্থা কোন ধরণের ইন্টারেস্ট ছাড়াই।
  • ক্যাশ উইথড্রয়ালে প্রতি ১০০০ টাকায় ৫০ পয়সা ইন্টারেস্ট প্রতিদিন হয়ে থাকে যদি সরাসরি ক্রেডিট কার্ড এটিএম ঢুকিয়ে টাকা ক্যাশ করা হয়।
  • সহজ EMI ফ্যাসিলিটি।
  • ০% ইন্টারেস্টে নামি- দামি কোম্পানির ইলেক্ট্রনিক, ফার্নিচার সহ বিভিন্ন কেনাকাটায় এমনকি হাসপাতালে বিল সহজেই ০% EMI করার সুবিধা।
  • NexusPay আপ্পসের মাধ্যমে দেশজুড়ে ২১০০০+ মার্চেন্ট QR কোডের মাধ্যমে পেমেন্ট করার সুবিধা।
  • সর্বচ্চ ৫০ দিনের পর্যন্ত ইন্টারেস্ট Free Period তার মানে কেনাকাটা বা খরচের পড়ে সর্বচ্চ ৫০ দিন পর্যন্ত সময় পাবেন ইন্টারেস্ট ছাড়া পরিশোধ করতে, সর্বনিম্ন ২০ দিন !
  • বছরে ৫০ হাজার টাকা সমপরিমাণ POS / E- Commerce ট্রানজেকশন হলেই বাৎসরিক চার্জ ১০০% ছাড়।
  • বাৎসরিক ২৫০০০ টাকা খরচে কার্ড চার্জ ৫০% ফ্রি।
  • সাপ্লিমেনটারী কার্ড একটি ১০০% ফ্রি লাইফ টাইম এর জন্য।
  • সহজেই বিল পেমেন্ট সুবিধা ( Branch, Fast Track, ATM & Nexus Pay )
আমরা ইতিমধ্যে Visa Gold & Master Gold ক্রেডিট কার্ডে কি কি সুবিধা পেতে যাচ্ছেন বিস্তারিত জেনে গেছি।

লেখকের শেষকথা

আজকের পোস্ট থেকে আমরা ভিসা গোল্ড ও মাস্টার গোল্ড ক্রেডিট কার্ড সম্পর্কে জেনেছি। ভিসা গোল্ড ও মাস্টার গোল্ড কার্ডের সুযোগ সুবিধা এবং পার্থক্য সম্পর্কে জেনেছি। আরো জেনেছি ক্রেডিট কার্ড কত প্রকার, এবং ক্রেডিট কার্ডের কাজ কি। সব মিলিয়ে বলা যায় ভিসা গোল্ড এবং মাস্টার গোল্ড কার্ডের অনেক সুযোগ-সুবিধা রয়েছে। দুটি কার্ডের মধ্যে যেকোনো একটি আপনি ব্যবহার করতে পারেন। আজকের আলোচনার বিষয় Visa Gold & Master Gold ক্রেডিট কার্ডে কি কি সুবিধা পেতে যাচ্ছেন।

অতঃপর পোস্টটি ভাল লাগলে একটি লাইক দিয়ে পেজের সাথেই থাকবেন। প্রয়োজনীয় তথ্য জানতে নিয়মিত আমাদের পেজটি ভিজিট করুন। পরিচিত বন্ধুবান্ধব যারা বিভিন্ন ক্রেডিট কার্ড সম্পর্কে জানতে চাই এবং ক্রেডিট কার্ড তৈরি করতে চাই তাদের মাঝে পোস্টটি শেয়ার করে ভিসা গোল্ড মাস্টার গোল্ড এর কাজ এবং পার্থক্য সম্পর্কে জানতে সাহায্য করুন ধন্যবাদ।

এই পোস্টটি পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন

পূর্বের পোস্ট দেখুন পরবর্তী পোস্ট দেখুন
এই পোস্টে এখনো কেউ মন্তব্য করে নি
মন্তব্য করতে এখানে ক্লিক করুন

অর্ডিনারি আইটির নীতিমালা মেনে কমেন্ট করুন। প্রতিটি কমেন্ট রিভিউ করা হয়।

comment url